আবার কি ফিরছে যৌনদাসী প্রথা! অন্ধকার যুগের আতঙ্কে কাঁটা আফগান মহিলারা

  • Published by: Saroj Darbar
  • Posted on: August 16, 2021 4:47 pm
  • Updated: August 25, 2021 5:25 pm
Taliban Captures Afghanistan, Women fear return of dark days

রাতারাতি বদলে গিয়েছে সবকিছু। প্রায় দু-দশকের স্বপ্ন, আত্মবিশ্বাস তছনছ করে আফগানিস্তানের দখল নিয়েছে তালিবান। আর তারপর থেকেই আতঙ্কে কাঁটা হয়ে আছে সেখানকার মহিলারা। আবার কি ফিরছে যৌনদাসী হওয়ার নিয়তি? উৎকণ্ঠার প্রহর গুণছে গোটা আফগানিস্তান।

তালিবানি নৃশংসতার শিকার বরাবরই মহিলারা। অতীতে যখন তালিবানের দখলে ছিল আফগানিস্তান, তখন এর সাক্ষী থেকেছে গোটা পৃথিবী। উগ্রপন্থা আর গোঁড়ামির সঙ্গে মিশেছে ধর্মীয় বিশ্বাস। তার আঘাত নেমে এসেছিল মহিলাদের উপর। জোর করে বিয়ের নামে মহিলাদের যৌনদাসী করে রাখা হত। এ ছাড়া প্রতিদিনের জীবন যাপনে হাজারও বাধানিষেধের প্রাচীর খাড়া করে রেখেছিল তালিবানরা। নিয়মের একটু এদিক ওদিক হলেই নেমে আসত শাস্তি।

আরও শুনুন – Sex Slave: যৌনদাসীর দিনরাত, ভয়াবহ অভিজ্ঞতা জানিয়েছিলেন Nadia Murad

তালিবানি শাসন মুক্ত হওয়ার পর ক্রমে ক্রমে আশার আলো দেখছিল গোটা আফগানিস্তান। একটা মুক্ত পরিবেশে বাঁচার স্বপ্ন দেখছিলেন সবাই। তলে তলে লড়াইটা অবশ্য রয়েই গিয়েছিল। তবু বৃথা আশা যেন মরতে মরতে মরে না। একটা অন্ধকার থেকে ক্রমশ আলোর দিকে হাঁটতে চাইছিল আফগানিস্তান।

আচমকাই পট পরিবর্তন। মার্কিন সেনার ছত্রছায়া সরে যাওয়ার পরেই আফগান দখল তালিবানদের কাছে সহজ হয়ে যায়। মাত্র কয়েকদিনের সংঘর্ষ। তারপরই আত্মসমর্পণ করতে বাধ্য হয় আফগান প্রশাসন। প্রেসিডেন্ট আশরফ ঘানি পলাতক। পুরো আফগানিস্তান এখন তালিবানের দখলে। আর তাতেই সিঁদুরে মেঘ দেখছেন আফগান মহিলারা। ফিরে আসছে অতীতের স্মৃতি। আবার কি ফিরতে চলেছে সেই অন্ধকার যুগ? আশঙ্কা সব মহলেই। ১৯৯৬-২০০১ এই শাসনকালে মহিলাদের একরকম বন্দি করেই রেখেছিল তালিবানরা। শিক্ষা তো দূরের কথা, প্রায় কোনও অধিকারই ছিল না তাঁদের। পুরুষ অভিভাবক ছাড়া মেয়েদের একা থাকার নিয়ম অব্দি ছিল না।

আরও শুনুন – হিন্দু হয়েও ৪০০-র বেশি মসজিদ বানিয়েছেন দেশের এই Mosque Man

সেই সঙ্গে তালিবান যোদ্ধাদের শারীরিক চাহিদা মেটানোর জন্য আকছার বিয়ের নামে যৌনদাসী হিসেবে নিয়োগ করা হত মেয়েদের। এটা ছিল একরকমের কৌশল। যুবকরা যাতে তালিবানি যোদ্ধা হয়, সেই কারণেই তাদের দেওয়া হত যৌনতার অফার। নামেই ছিল বিয়ে। আসলে দিনের পর দিন মুখ বুজে গণধর্ষণের শিকার হতেন মহিলারা। অত্যাচারের সেই বর্ণনা পরবর্তীতে জেনে শিউরে উঠেছে পৃথিবী। যা যা মানবতা বিরোধী বলে চিহ্নিত, তারই যেন স্বর্গরাজ্য হয়ে উঠেছিল তালিবানি শাসনের আফগানিস্তান।

 বাকি অংশ শুনে নিন প্লে-বাটন ক্লিক করে। 

আরও শুনুন
Horoscope : Check your astrological prediction for the day 19 September 2021

Horoscope: জ্বরে ভুগতে পারেন কারা? জেনে নিন রাশিফল

শুনে নিন প্লে-বাটন ক্লিক করে।

Team সংবাদ প্রতিদিন শোনো

Thoughts of Soumitra Chaterjee about the Hero of bengali cinema

‘লবেঞ্চুস মার্কা হিরো’ নয়, নায়কের ধারণায় বদল আনার নায়ক সৌমিত্রই

দেবতুল্য নায়কদের নিয়ে কী ভাবনা ছিল সৌমিত্রর? শুনে নিন।

Team সংবাদ প্রতিদিন শোনো

News Bulletin: Current News for the day of 04 September 2021

4 সেপ্টেম্বর 2021: বিশেষ বিশেষ খবর- ভবানীপুরে উপনির্বাচন ৩০ সেপ্টেম্বর, প্রচার শুরু তৃণমূলের

বিশেষ বিশেষ খবর শুনে নিন প্লে-বাটন ক্লিক করে।

Team সংবাদ প্রতিদিন শোনো

মিস করবেন না!
Horoscope : Check your astrological prediction for the day 30 September 2021

Horoscope: ভেঙে যাওয়া সম্পর্ক জোড়া লাগবে কাদের? জেনে নিন রাশিফল

শুনে নিন আপনার রাশিফল।

Team সংবাদ প্রতিদিন শোনো

news-bulletin-current-news-for-the-day-of-09-september-2021

9 সেপ্টেম্বর 2021: বিশেষ বিশেষ খবর- 2014 সালের প্রাথমিক টেট ঘিরে অসন্তোষ, নিয়োগের তথ্য তলব হাই কোর্টের

বিশেষ বিশেষ খবর শুনে নিন প্লে-বাটন ক্লিক করে।

Team সংবাদ প্রতিদিন শোনো

Muslim resident of Jamia Nagar move to court to save a temple

এটাই আসল ভারতবর্ষ… এলাকার হিন্দু মন্দির বাঁচাতে আদালতের দ্বারস্থ মুসলিম বাসিন্দারা

মন্দির বাঁচাতে আদালতের দ্বারস্থ মুসলিমরা।

Team সংবাদ প্রতিদিন শোনো

Type of Bra you should wear, know the secret

সৌন্দর্য বাড়াতে ঠিক মাপের অন্তর্বাস পরছেন তো! বুঝবেন কীভাবে?

শুনে নিন প্লে-বাটন ক্লিক করে।

Team সংবাদ প্রতিদিন শোনো